কমিশনের চোখে ধুলো, উধাও নজরবন্দি অনুব্রত, ভোটের আগেই শুরু ‘খেলা’

0
27

একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগে বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল ‘খেলা হবে’ স্লোগান তুলেছিলেন। আর সেই খেলায় যেন তিনি শুরু করে দিলেন নজরবন্দি হওয়ার পর। ভোটের আগে নজরবন্দি থাকাকালীন হঠাৎ উধাও। যা নিয়ে রীতি মত শোরগোল পড়ে গেছে এলাকায়।জানা গিয়েছে, বীরভূমের ভোটের আগের দিন অর্থাৎ বুধবার বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল নিজের বোলপুরের নিচুপট্টির বাড়ি থেকে তিনি বের হন। তার উদ্দেশ্য ছিল জেলার বিভিন্ন কার্যালয়ে যাওয়ার। নজরবন্দি থাকাকালীন তার সাথে ছিল নির্বাচন কমিশনের আধিকারিকরা এবং সেনা জাওয়ানরা। কিন্তু হঠাৎ রাস্তার কোন এক বাঁকে হঠাৎ উধাও হয়ে যান অনুব্রত মণ্ডলের গাড়ি। যার পরেই খোঁজ শুরু হয় ‘কোথায় গেলো কেষ্ট দা’, ‘কোথায় গেলেন কেষ্ট দা’। ঠিক যেন খেলা দেখানো শুরু করে দিলেন তিনি।যদিও কিছুক্ষণ পর অনুব্রত মণ্ডলের সাথে পুনরায় সম্পর্ক স্থাপন করতে পারেন কমিশনের আধিকারিকরা এবং কেন্দ্রীয় বাহিনী। তবে এই ঘটনায় কমিশনের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছে।একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগে বীরভূমের এই দাপটে তৃণমূল নেতা অনুব্রত মণ্ডলকে নির্বাচন কমিশন মঙ্গলবার বিকাল পাঁচটা থেকে নজর বন্দি করার নির্দেশ দেয়। সেই নির্দেশ মত অনুব্রত মণ্ডলকে নজর বন্দী করা শুরু করে বীরভূম জেলা প্রশাসন এবং কেন্দ্রীয় বাহিনী। এই নজরবন্দি চলবে শুক্রবার সকাল সাতটা পর্যন্ত। তবে তার মাঝেই বুধবার এমন ঘটনা স্বাভাবিকভাবেই শোরগোল ফেলতে শুরু করেছে এলাকায়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে