উত্তর দিনাজপুরের গোয়ালপোখরে আসামী ধরতে এসে দুস্কৃতী হামলায় মৃত্যু বিহারের কিষানগঞ্জ থানার পুলিশ ইন্সপেক্টরের ।

0
10

উত্তর দিনাজপুরের গোয়ালপোখর আসামী ধরতে এসে দুস্কৃতী হামলায় মৃত্যু হল বিহারের কিষানগঞ্জ থানার এক পুলিশ ইন্সপেক্টরের। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তর দিনাজপুরের গোয়ালপোখর থানার পান্তাপাড়া গ্রামে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ।জানা গেছে মৃত পুলিশ ইন্সপেক্টরের নাম অশ্বিনী কুমার ( ৫০) । ঘটনার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে ছুটে আসে বিহার রাজ্যের পদস্থ পুলিশ আধিকারিক সহ উত্তর দিনাজপুরের ইসলামপুর পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার শচীন মক্কার সহ উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা। ঘটনা প্রসঙ্গে জানা গেছে শুক্রবার গভীর রাতে এক আসামীকে গ্রেপ্তার করতে উত্তর দিনাজপুর জেলার গোয়ালপোখর থানার পান্তাপাড়া গ্রামে আসে বিহারের কিশানগঞ্জ থানার পুলিশ ইন্সপেক্টর অশ্বিনী কুমার। সেই সময় অভিযুক্ত আসামী সহ দুস্কৃতীরা খুন করে অশ্বিনী কুমারকে। গভীর রাতের এই ঘটনার খবর পেয়েই আজ সকালেই ঘটনাস্থলে ছুটে আসে বিহারের পূর্নিয়া রেঞ্জের আইজি সুরেশ প্রসাদ সহ পুলিশের পদস্থ আধিকারিকেরা। ছুটে আসেন ইসলামপুর মহকুমার পুলিশ আধিকারিকেরাও। এবিষয়ে বিহারের পূর্নিয়া রেঞ্জের আইজি সুরেশ প্রসাদ জানিয়েছেন, উত্তর দিনাজপুর জেলার গোয়ালপোখর থানার পান্তাপাড়া গ্রামে মোটরবাইক চুরির আসামীকে ধরতে এসেছিল অশ্বিনী কুমারের নেতৃত্বে কিশানগঞ্জ থানার একটি টিম। দুস্কৃতীরা এবং গ্রামের বাসিন্দারা অশ্বিনী কুমারকে ঘিরে ফেলে পিটিয়ে খুন করে। বাকি পুলিশ কর্মীরা গ্রামবাসীদের হাত থেকে পালিয়ে গিয়ে রক্ষা পেলেও ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় অশ্বিনী কুমারের। যারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের অবশ্যই গ্রেপ্তার করা হবে। উত্তর দিনাজপুর জেলাশাসক অরবিন্দ কুমার মীনা জানিয়েছেন, ওই পুলিশ অফিসারের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালের পুলিশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতেই মৃতদেহের ময়নাতদন্ত করা হবে। দুস্কৃতিদের খোঁজে এলাকায় চলছে পুলিশের টহলদারি। এই ঘটনায় মূল আসামী মহঃ ফিরোজ আলম ও তাঁর মা’কে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে